দাড়ি কান্ড

যারা এতদিন দাড়ি না রেখে গার্লফ্রেন্ডের বকা খেয়েছে, এ সমীক্ষায় তাদের হাসি থামছেই না! কে জানে, নতুন গবেষণার এই ‘আজব’ খবর জানলে রবীন্দ্রনাথও হয়তো গালে হাত দিয়ে ভাবতে বসতেন!

গাল জুড়ে হালকা নরম দাড়ি না হলে সে ছেলের সঙ্গে প্রেমই করবে না বলে জানিয়েছিল তৃষা। দাড়ি ওর ভারি পছন্দের। এমনকী সুন্দর দাড়িওয়ালা ছেলের জন্য বাবা-মা তো কোন ছাড়, সারা পৃথিবীর সঙ্গেই টক্কর দিতে রাজি সে! এদিকে দাড়ি মোটেই পছন্দ নয় অর্ণবের। শখ করে দাড়ি রাখার চেষ্টা করলেও প্রত্যেকবারই কী এক অজ্ঞাত কারণে অল্প কিছুদিন পর থেকেই কুটকুট করতে শুরু করে সেটা।

 

 

ফলে বাধ্য হয়ে শেষমেশ বিসর্জনই দিতে হয়েছে সাধের শ্মশ্রুরাশি। তবে যে যাই বলুক, দাড়িওয়ালা পুরুষ মানেই যে এ বাজারের কড়া টক্করে মেয়েদের মন জয় করতে বেশ কয়েক কদম এগিয়ে সে, এ কথা মানবে সবাই। তাছাড়া পুরুষের দাড়ি যে মেয়েদের আরও বেশি করে আকর্ষণ করে, এ কথা কিন্তু বলছে হালের সমীক্ষাগুলিও। শুধু তাই নয়, দাড়ি নাকি ত্বককে অতিবেগুনি রশ্মির হাত থেকেও রক্ষা করে। তবে এবার জানা গেল অন্য এক তথ্য। সুইস বিজ্ঞানীরা তাঁদের এক সমীক্ষায় সম্প্রতি জানিয়েছেন, দাড়ি রাখাটা নাকি মোটেও ভাল ব্যাপার নয়, দাড়িতে নাকি গিজগিজ করে জীবাণু। যে সে জীবাণু নয়, সে জীবাণু নাকি বেশ কিছু ক্ষেত্রে কুকুরের লোমের চেয়েও বেশি! সুইজারল্যান্ডের ওই বিজ্ঞানীরা ১৮ জন মানুষ ও ৩০ টি কুকুরের উপর সমীক্ষা চালিয়ে দেখেছেন ১৮ থেকে ৭৬ বছর বয়সের ওই ১৮ জনের দাড়ির ব্যাকটেরিয়ার পরিমাণ হার মানিয়ে দিয়েছে কুকুরের লোমে থাকা ব্যাকটেরিয়াকেও!
যারা এতদিন দাড়ি না রেখে গার্লফ্রেন্ডের বকা খেয়েছে, এ সমীক্ষায় তাদের হাসি থামছেই না! কে জানে, নতুন গবেষণার এই ‘আজব’ খবর জানলে রবীন্দ্রনাথও হয়তো গালে হাত দিয়ে ভাবতে বসতেন!

 

 

মন্তব্য করুন



আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

সর্বসত্ব সংরক্ষিত