সুইডিশ কিশোরীর নোবেল মনোনয়ন লাভ

জলবায়ু পরিবর্তনের হুমকি মোকাবেলায় যুব আন্দোলন পরিচালনার স্বীকৃতি হিসেবে সুইডেনের পরিবেশ কর্মী গ্রেটা থানবার্গ এবছরের নোবেল পুরস্কারের জন্য মনোনয়ন লাভ করেছেন। নরওয়ের তিনজন আইনজ্ঞ নোবেল পুরস্কারের জন্য ষোলবছরের এ কিশোরীর নাম প্রস্তাব করেন।

নরওয়েজিয়ান গণমাধ্যমকে দেয়া বক্তব্যে সংসদীয় প্রতিনিধি ফ্রেডি আন্দ্রে ওয়েবস্টেগার্ড জানান “আমরা গ্রেটাকে মনোনীত করেছি কারন জলবায়ু ঝুঁকি আগামীর যুদ্ধ ও সংঘাতের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ কারন হয়ে দাঁড়াতে পারে।”তিনি আরও বলেন”গ্রেটা যে বৃহত্তর আন্দোলনের সূচনা করেছে তা শান্তির জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ অবদান”।

টাইমসের সবচেয়ে প্রভাবশালী কিশোরী খেতাব পাওয়া গ্রেটা সারাবিশ্বে স্কুল পর্যায়ে কোটি কোটি ছেলেমেয়েকে তাদের নেতাদের জলবায়ু ঝুঁকি প্রতিরোধে ফলপ্রসূ উদ্যোগ নিতে সক্রিয় ভূমিকা পালনে উদ্বুদ্ধ করেছেন।

জাতিসংঘের এক প্রতিবেদনে জানা যায় চলমান হারে গ্রিনহাউজ গ্যাস নির্গমন অব্যাহত থাকলে বিজ্ঞানীদের ভাষ্যমতে ২০৩০ সাল নাগাদ পৃথিবীতে এক মারাত্মক পরিবেশ বিপর্যয়ের সূচনা হবে। ২০১৮ সালে পোল্যান্ডে অনুষ্ঠিত জাতিসংঘের জলবায়ু পরিবর্তন সম্মেলনে গ্রেটা আইনপ্রনেতা এবং বিশ্ব নেতৃবৃন্দের নিকট পরিস্থিতি মোকাবেলায় তাদের সক্রিয় উদ্যোগ কামনা করেন।

জানুয়ারিতে সুইজারল্যান্ডের দাভোসে অনুষ্ঠিত ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক ফোরামের সম্মেলনে গ্রেটা পিনপতন নীরবতায় এই বলে তার কথা শেষ করেন যে” ধরে নিন আমাদের আবাস অগ্নিকুন্ডের মধ্যে কারন পরিস্থিতি প্রকৃতই এমন”। তার নেতৃত্বে পরিচালিত ফ্রাইডে ফর ফিউচার আন্দোলনের অংশ হিসেবে বিশ্বব্যাপী কিশোর-কিশোরীরা এই শুক্রবার স্কুল কার্যক্রমের বিপরীতে পরিবর্তনের জন্য এক পদচারনায় শামিল হবে।

এক টুইট বার্তায় গ্রেটা আশা প্রকাশ করে জানান, প্রায় একশো দেশ এ কর্মসূচির অংশ হবে।

 

সূত্রঃ টাইম

মন্তব্য করুন



আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

সর্বসত্ব সংরক্ষিত