| 17 জুলাই 2024
Categories
কবিতা সাহিত্য

সোনালি ফোরাত নদী

আনুমানিক পঠনকাল: 3 মিনিট
 ( প্রিয় কবি মাসুদ খান কে )
 
Irabotee.com,irabotee,sounak dutta,ইরাবতী.কম,copy righted by irabotee.com
 
 
 
জ্বর, কিসে পরোয়া তোমার?
এদিকে ভাষার খুলি কুয়াশা-ভরাট হয়ে
ধূসর করাল সেজে তোমার নিশ্চুপ ইগো
জয় করবার দাগ কাটছে সাগরতীরে। এই
ভ্যাপসা বাতাস চিনি। যে কোনো অভিমান
চিনি। কিসের পরোয়া করে এতোদূর তুমি
জাল ফেলে আমাকে জড়ালে, বলো?
 
এই নিকষ প্রহর যেনো
কারো মা’র মৃতদেহ ল’য়ে
দরোজায় অপেক্ষমান!’
 
 
 
 
 
Irabotee.com,irabotee,sounak dutta,ইরাবতী.কম,copy righted by irabotee.com
 
 
 
 
এদিকে কবির চাহনী লাল, যেন ব্যাবিলন গিয়ে
কতো উঁচু হাওয়া গ্রাস করে ফিরে আসে গ্রহে-
একে একে সমস্ত পরাগে, দোল খায় বাগান তাহার!
 
 
বাসনা-রক্তে ভেঁপু, বাজছেহেসে, রেস-ঋতু ঝরে, কোথা যায়
মানুষেরনিরক্ষ বন্ধন?
 
 
ফুটে আছে কত রঙে ফুল? তুমিও অবাক, শাক তুলে
ঘরে আসে মা, তুমি কি অবাক দ্যোতনা বুকে
সাঁকো হতে দেখছো বসে!
 
 
এদিকে বৃদ্ধ গাছিরা আসে। নিদ্রাকে হেমন্ত নামে ডাকে;
আয়ু থেকে হেসে ওঠে কনিষ্ঠা কন্যা।
 
 
কবির চাহনী লাল, আর সারা রাস্তায়তুমি কি অবাক সাইকেল;
পার করে দিচ্ছো গোধূলী, নদীপথে, তরঙ্গসংকুল!
Irabotee.com,irabotee,sounak dutta,ইরাবতী.কম,copy righted by irabotee.com
 
 
হার আছে, মানে পরাজয়-
এ’ই যে দরাজ মাঠে থরে থরে সন্ধ্যা-পয়ার নামে
আর তুমি কিনা শেষ পঙক্তি, স্মৃতির সামনে এলে
মাথা নুয়ে আসে বলে ক্ষণকাল থামি, দায়সারা গোধূলীর
মুখ কালো করে আসে আন্ধার রাইত, দাগ পড়ে, মানে কলঙ্ক
স্বীকারের পর চাঁদ যেনো বড়াই করেনি আর, মানে পরাজয়!
 
 
 
Irabotee.com,irabotee,sounak dutta,ইরাবতী.কম,copy righted by irabotee.com
 
 
 
 
 
দুই ধারে রোদ নিয়া বিদিক নদীও হাসে
ঢোল-বেহালার হাসি, বিহানের কোল ঘেঁষে
ছয় ঋতু মহাকাশে যায়, পাখি ওড়ে, পাখা-ঘুম-ঘুম
কোরক খুলেছে রোদ, শেষ সিনে আমরা ভিজুম
সখী, কে ডাকে পান্থ-ছড়ায়, ডাকে ধানী চর
এই প্রেম ছনের কুটির, থাকে পাতার অক্ষর।
 
 
দুই কাঁধে মেঘ নিয়া, জাগো তুমি তিরিশ শ্রাবণ
হাড়মাসে ভুখ লাগে যার, তারে কয় পিরিত পাবন
দুই চোখে নিদ পড়ে নাই, রাত নামে নিঝুম বাগান
তারে কয় পরশ পরাগে যার ফুল ফুটে কলির নিদান।
এই প্রেম তিরের ফলায় গাঁথা, কলিজার টুকরা কেমন
ছুঁই ছুঁই জ্যান্ত দেখায়, চূড়া ও সড়ক পথে, বন্যা যেমন!
 
 
 
 
Irabotee.com,irabotee,sounak dutta,ইরাবতী.কম,copy righted by irabotee.com
 
 
 
 
বহুদূরে চারুকলা ফেলে এসে
আমাদের দেখা হবে আগুন-পাহাড়ে
এর ধারে সোনালি ফোরাত নদী, এর ধারে ঘাস থরথর!
 
কে পারে বলো তো, সম্রাটও কি পেরেছে তাহার
মৃত্যুর তারিখ পেছাতে?
 
বহুদূর গোধূলির গা’য় লাগে, ঘৃতকুমারির টোকা;
গান গায় বনস্পতি, দুপুরের শিলা বৃষ্টি, বিস্মৃত মাঠ;
যেনো সব ভাসমান! খড়ের কুটিরে ভাসে, মেঘ-ঝিরি;
উঠে গেছে ছায়ার ধনুক মেঘে, মনে মনে হাতছানি দেয়;
পলকে পলক ঢাকে!
 
শুনে তুমি আশ্চর্য?
 
মিথের নদীতে নেমে, মেঘের ধারালো ঘাই
অবিহিত ছিঁপে, বধ করে, পাহাড়ে চড়াই
লিখে রাখি চরাচর, গ্রহের করাল রাত;
দিগন্তে জাগে ভোর, অচেনা আয়াত!
 
 
 
 
 
 
Irabotee.com,irabotee,sounak dutta,ইরাবতী.কম,copy righted by irabotee.com
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

error: সর্বসত্ব সংরক্ষিত