মাস্কটি সঠিক ভাবে পরিষ্কার করাটাও জরুরি

বাড়ির বাইরে বেরোতে হলে মাস্ক পরা আবশ্যক করেছে সরকার। সেই নিয়ম কম বেশি সবাই মেনে চলছেন। কিন্তু মাস্ক পরা যেমন জরুরি, মাস্ক পরিষ্কার করাটাও কিন্তু ততটাই জরুরি। সেই কাজটা আমরা অনেক সময়েই করে উঠতে পারছি না।

সার্জিক্যাল মাস্ক একবার পরেই ফেলে দিতে হয়। তবে চিকিৎসক-স্বাস্থ্যকর্মীদের ব্যবহারের জন্য এন৯৫ মাস্কসহ সুতির কাপড়ের মাস্ক বা টেরিলিন কাপড়ের মাস্ক এমনকি ঘরোয়া উপায়ে বানানো মাস্কও পরিষ্কার করতে হবে।

যেভাবে মাস্ক পরিষ্কার করবেন

১. মাস্কে সরাসরি হাত দেবেন না। ঘরে ফেরার পর মাস্ক খুলুন দড়ি, ফিতে বা রাবার ব্যান্ডের অংশ ধরে।

২. সাবান বা ডিটারজেন্ট মেশানো জলে ভিজিয়ে ধুয়ে নিন।

৩. মাস্ক ধোয়ার পর জীবাণুনাশক লোশনে ডুবিয়ে ঝুলিয়ে রাখুন ছাদের কোনো আংটায়। কড়া রোদে শুকোতে দিতে পারল উত্তম। রোদে ভাইরাসের বেঁচে থাকার সম্ভাবনা কম।

৪. গরম জলে মাস্ক ফুটিয়ে নিতে পারেন। এতে জীবাণুমুক্ত হবে মাস্ক।

৫. শুকানোর সময় মাস্কের মূল অংশে ধুলোবালি যেন না লাগে।

৬. শুকানোর পর তাকে ৫-৭ মিনিট ধরে ইস্ত্রি করে নিলেই আপনার মাস্ক ফের ব্যবহারের জন্য তৈরি।

৭. ভালোভাবে না শুকিয়ে ভেজা মাস্ক পরা যাবে না। এতে সংক্রমিত হওয়ার ঝুঁকি বাড়ে।

মন্তব্য করুন



আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

সর্বসত্ব সংরক্ষিত