| 17 জুন 2024
Categories
খবরিয়া

না ফেরার দেশে সুষমা স্বরাজ

আনুমানিক পঠনকাল: < 1 মিনিট

 

না ফেরার দেশে চলে গেলেন সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও সবার প্রিয় নেত্রী সুষমা স্বরাজ। হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার কিছুক্ষণের মধ্যেই শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। সঙ্কটজনক অবস্থায় তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল মঙ্গলবার সন্ধ্যায়।

বুকে ব্যথা নিয়ে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হলে কিছুক্ষন পরেই হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে তাঁর মৃত্যু হয়। ইতোমধ্যেই হাসপাতালে পৌঁছে গিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষ বর্ধন ও নীতিন গদকড়ি। এবার লোকসভা নির্বাচনে ভোটে লড়েননি তিনি। নিজেই জানিয়েছিলেন সেই ইচ্ছার কথা।

তবে, গত পাঁচ বছরে স্বরাজের সাফল্য নিঃসন্দেহে প্রশংসা পেয়েছে বিভিন্ন মহলে। রাষ্ট্রসংঘে পাকিস্তান বিরোধী কড়া বার্তা মনে রাখার মতো। যখনই কোনো ভারতীয় বিশ্বের কোনো প্রান্তে বিপদে পড়েছেন, তার দিকে হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন সুষমা। দীর্ঘদিন ধরে পাকিস্তানে আটকে থাকা মুক ও বধির ভারতীয় মেয়েকে দেশে ফিরিয়ে এনেছেন সুষমা।

১৯৭০-এর দশকে অখিল ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদের হাত ধরে রাজনৈতিক জীবন শুরু সুষমার। স্বামী স্বরাজ কৌশাল ছিলেন সমাজতান্ত্রিক নেতা জর্জ ফারনান্দেজের খুব কাছের মানুষ। ১৯৭৫ সালে জর্জ ফারনান্দেজের আইনি প্রতিরক্ষা দলের একটি অংশ হিসেবে নিজেকে তুলে ধরেন সুষমা। জয় প্রকাশ নারায়নের আন্দোলনের মধ্য দিয়ে সক্রিয় রাজনীতিতে প্রবেশ করেন।

জরুরি অবস্থার পর, তিনি ভারতীয় জনতা পার্টিতে যোগ দেন। ১৯৭৭ থেকে ১৯৮২ পর্যন্ত হরিয়ানা বিধানসভার সদস্য ছিলেন। মাত্র ২৫ বছর বয়সে আম্বালা সেনানিবাস বিধানসভা আসন অর্জন করেন। ১৯৭৭ এর জুলাইয়ে জনতা পার্টি সরকারের মন্ত্রী হিসেবে শপথ নেন।

 

 

 

 

 

 

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

error: সর্বসত্ব সংরক্ষিত