ঝলসে যাওয়া দীপিকার মুখ

‘রাজি’র পরিচালক মেঘনা গুলজারের নতুন ছবি ‘ছপাক’-এ অ্যাসিড আক্রান্ত লক্ষ্মী আগরওয়ালের ভূমিকায় দেখা যাবে দীপিকাকে। আজ সোমবার থেকেই শুরু হচ্ছে ছবির শ্যুটিং। তার আগে ছবির ফার্স্ট লুক প্রকাশ করা হয়েছে। যেখানে অর্ধেক পুড়ে যাওয়ায় চেহার চমকে দিয়েছেন ‘পদ্মাবত’ অভিনেত্রী। ছবির পোস্টার সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করে দীপিকা লিখেছেন, এই চরিত্রটি আমার সঙ্গে সারাজীবন থাকবে। আগামী বছর ১০ জানুয়ারি মুক্তি পাচ্ছে ‘ছপাক’।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটার ও ইনস্টাগ্রামে নিজের নতুন রূপ শেয়ার করেছেন দীপিকা। তিনি লিখেছেন, ‘মালতী নামের এই চরিত্রটি চিরকাল আমাকে বাঁচিয়ে রাখবে।’
‘ছপাক’-এর ফার্স্ট লুক পোস্টারে মালতী চরিত্রে সাহসী, সুন্দর ও অনুপ্রেরণা জোগানো একটি মেয়ে বলে মনে হচ্ছে দীপিকাকে। বাস্তবের চরিত্র লক্ষ্মী আগারওয়ালকে অবলম্বন করে এটি সাজানো হয়েছে। এসিড সন্ত্রাসীসহ সব বাধার বিরুদ্ধে লড়াই করে সফল হয়ে নির্যাতিত নারীদের জন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন তিনি। তাদের মুখাবয়বের সাদৃশ্য আছে।
দীপিকাকে সবশেষ বড় পর্দায় দেখা গেছে ‘পদ্মাবত’ ছবিতে। এতে অতুলনীয় রূপবতী রানির ভূমিকায় অভিনয় করেন তিনি। এবার এমন একজন নারীর চরিত্র বেছে নিয়েছেন, যার মনের সৌন্দর্য ও অনুপ্রেরণা জোগানো সাহস জনসাধারণের জন্য উদাহরণ হিসেবে কাজ করে। লক্ষ্মী এখন টিভি উপস্থাপক হিসেবে কাজ করেন। এছাড়া এসিড সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে নিয়মিত প্রচারণা চালান তিনি।
রূপসী আঙ্গিক থেকে সরে এসে ছবিটির জন্য দীপিকার সাহসী রূপান্তরের প্রশংসা করছেন তারকা, সমালোচক ও ভক্তরা। বলিউডের এ প্রজন্মের অভিনেতা বরুণ ধাওয়ান, ভিকি কৌশল, রাজকুমার রাও, অর্জুন কাপুর, অভিনেত্রী পরিণীতি চোপড়া, জ্যাকুলিন ফার্নান্দেজ ও হুমা কুরেশি তার এই মেকআপের গুণগান করেছেন।

সূত্রঃ জি নিউজ

 

 

মন্তব্য করুন



আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

সর্বসত্ব সংরক্ষিত